1. news@banglaroitizzo.com : BanglarOitizzo :
  2. banglaroitizzo.news@gmail.com : newseditor :
শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:৪৫ পূর্বাহ্ন

বরিশালের ঐতিহাসিক দুর্গাসাগর দিঘী।

প্রতিবেদকের নাম:
  • প্রকাশিত: শনিবার, ৬ জুন, ২০২০
  • ২০ বার পড়া হয়েছে
দুর্গাসাগর দিঘী

দুর্গাসাগর দিঘী (Durga Sagar) বরিশাল শহর থেকে মাত্র ১২ কিলোমিটার দূরে স্বরূপকাঠি – বরিশাল সড়কে মাধবপাশায় অবস্থিত। ১৭৮০ খৃষ্টাব্দে তৎকালীন রাজা শিব নারায়ণ এলাকাবাসীর পানির সংকট নিরসনের জন্য মাধবপাশায় একটি বৃহৎ দীঘি খনন করে তাঁর মা দুর্গা দেবীর নামানুসারে দিঘীটির দুর্গাসাগর নামকরণ করেন। ঐতিহাসিক এই দিঘীটির জলাভূমির আয়তন ২৭ একর এবং পাড় ও জমি সহ মোট আয়তন ৪৫.৪২ একর। বর্তমানে জেলা প্রশাসন দুর্গাসাগর দিঘী রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব পালন করছে। দুর্গাসাগর দিঘীর তিন দিকে ৩টি ঘাটলা এবং দিঘীর মাঝখানে একটি টিলা বা ছোট দ্বীপ রয়েছে। স্থানীয়দের কাছে এই দুর্গাসাগর মাধবপাশা দীঘি (Madhobpasha Dighi) নামেও ব্যাপক পরিচিত।

 

চারপাশে নারিকেল, সুপারি, শিশু, মেহগনি বৃক্ষ দিয়ে ঘেরা দিঘির উত্তর পাশে একটি বড় বাঁধানো ঘাট আছে। বছরের যেকোন সময় দুর্গাসাগর দিঘী দেখতে যাওয়া যায় তবে শীতকালে দুর্গাসাগরে বুকে ঝাঁকে ঝাঁকে অতিথি পাখির আগমন ঘটে। সরাইল ও বালিহাঁস সহ প্রায় ৬ প্রজাতির হাজার হাজার পাখির কলরবে চারপাশ মুখরিত থাকে। প্রায় আড়াইশ বছর পুরনো ঐতিহ্যবাহী দুর্গাসাগর দিঘীর সৌন্দর্য্য দেখতে অসংখ্য লোকের আগমন ঘটে।

দুর্গাসাগর দিঘী

দুর্গাসাগর দিঘী

 

দুর্গাসাগর দিঘী কিভাবে যাবেন

বরিশাল থেকে চাখার যাওয়ার বাসে চড়লে দূর্গাসাগর দীঘির একদম সামনে নামতে পারবেন। এছাড়া লঞ্চঘাট থেকে ব্যাটারী চালিত লেগুনা দুর্গাসাগর দিঘীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। চাইলে সিএনজি কিংবা অটোরিক্সা রিজার্ভ করে ঘুরে আসতে পারবেন দুর্গাসাগর থেকে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

নিউজ ক্যাটাগরি